চুলে রঙিন ফুল

সাজের অনুষঙ্গ হিসেবে ফুলের জুড়ি নেই। তাজা ফুলের তুলনা তো শুধু সে নিজেই, তবে আজকাল কৃত্রিম ফুল ব্যবহারের চলও বেশ দেখা যাচ্ছে। চুল জেল দিয়ে বেঁধে বড় একটা কৃত্রিম ফুল গুঁজে দিলে বেশ জমকালো আমেজ পাওয়া যায় সাজে। আবার এই ফুলগুলো শুকিয়ে নষ্ট হয়ে যাওয়ারও ভয় নেই। রূপবিশেষজ্ঞ কানিজ আলমাস খান জানালেন, কীভাবে সাজবেন কৃত্রিম ফুল দিয়ে।
দীর্ঘসময় সাজ ঠিক রাখতে ব্যবহার করতে পারেন কৃত্রিম ও শুকনো ফুল। সারা দিনের জন্য কোনো অনুষ্ঠান বা উৎসবে গেলে প্রাকৃতিক ফুলগুলো নেতিয়ে পড়ে খানিক পরই। সে ক্ষেত্রে বেছে নিতে পারেন কৃত্রিম ফুল। এ ছাড়া অনেক সময় আপনার পোশাকের রঙের সঙ্গে মিলিয়ে প্রাকৃতিক ফুল না পেলেও খুব সহজেই পেয়ে যেতে পারেন শুকনো ফুল।
তবে যেকোনো ফুল বেছে নিলেই চলবে না। মুখের গড়ন গোল হলে একটু চ্যাপটা ও ছোট আকৃতির ফুল বেছে নিন।
যাঁদের মুখ লম্বাটে, তাঁরা তুলনামূলক ছড়ানো ও বড় ফুল পরতে পারেন। রং মিলিয়ে শাড়ি, সালোয়ার-কামিজ, পাশ্চাত্য পোশাক—সবকিছুর সঙ্গেই পরতে পারেন শুকনো ফুল।
পোশাকের রঙের সঙ্গে হুবহু না মিলিয়ে সব রঙের পোশাকের জন্য সাদা ফুল বেছে নিতে পারেন। অথবা লালরাঙা ঠোঁট আর লাল টিপের সঙ্গে মিলিয়ে পরতে পারেন লাল ফুল।
পাশ্চাত্য পোশাক অথবা চাইলে শাড়ির সঙ্গে সুতা বা ফিতায় পেঁচিয়ে এক পাশ করে গলায় পরতে পারেন ফুল। হাতে ক্লাচ ব্যাগের সঙ্গে খুব ভালো মানিয়ে যাবে সাজটা। সে ক্ষেত্রে চুল বাঁধায় আনুন বৈচিত্র্য। সামনের দিকের চুলটা ঢেউ খেলিয়ে চ্যাপটা করে কানের কাছে টেনে নিতে পারেন অথবা খোলা চুলে কানের ওপরে গুঁজে দিতে পারেন ফুল। চুলটা পনিটেইল করেও লাগিয়ে নিতে পারেন কোনো ফুল। দিনের বেলায় ফুল কম পরুন। বড় হলে একটা ফুলই থাক। ছোট ফুল হলে দুটি বা তিনটি নিন।
রাতের সাজে গ্লিটারসহ ফুল বেছে নিন জমকালো কোনো পোশাকের সঙ্গে। যখন বড় ফুল পরবেন, তখন গলা ও কানের গয়নাটা একটু হালকা বেছে নিন। আপনি বাজারে যেকোনো কসমেটিকস (সাজসজ্জার) দোকানে খোঁজ করলে পেয়ে যাবেন আপনার পছন্দের রঙিন ফুল। ৫০-৩৫০ টাকার মধ্যে পাবেন ছোট-বড় নানা আকৃতির ফুল। ফুলের কৃত্রিম মালা পাবেন ১০০-৪৫০ টাকার মধ্যে। ফুল কেনার সময় খেয়াল রাখুন ফুলগুলো নিখুঁত কি না এবং ফুলের পাপড়ির রং স্থায়ী কি না।
চাইলে নিজেও প্রাকৃতিক ফুল শুকিয়ে রাখতে পারেন। গোলাপ, চন্দ্রমল্লিকা ও ডালিয়া ফুলকে উল্টো করে চার সপ্তাহ ঝুলিয়ে রেখে সংরক্ষণ করতে পারেন। সে ক্ষেত্রে একটু মোটা পাপড়ির ফুল বেছে নিন। চাইলে মনের মতো রঙে রাঙিয়ে নিতে পারেন তা। অথবা রঙিন ফিতা ও কাপড় দিয়ে নিজেই বানিয়ে নিতে পারেন আপনার পছন্দের রঙিন ফুল। এবার রঙিন ফুলের বর্ণিল সাজে রঙিন হয়ে ওঠার পালা।

সূত্র: দৈনিক প্রথম আলো, মার্চ ০১, ২০১১

webdesigner